সিলেট-সুনামগঞ্জ সড়কে চলাচলকারী সকল ধরণের বাস থামিয়ে চাঁদাবাজির অভিযোগে রোববার (১৯ সেপ্টেম্বর) সকাল ৬টা থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য সুনামগঞ্জ-ঢাকা রুটে বাস চলাচল বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে।

শনিবার (১৮ সেপ্টম্বর) দুপুরে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন সুনামগঞ্জ জেলা সড়ক পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক নূরুল হক।

জানা গেছে, অনেকদিন ধরে সুনামগঞ্জ থেকে ঢাকায় আসা-যাওয়ার পথে সিলেট-বাইপাস সড়ক এলাকায় আন্তঃজেলা বাসে চাঁদাবাজি করে আসছে একটি চক্র। বার বার এ নিয়ে সিলেটের বিভাগীয় কমিশনার, পুলিশ কমিশনার, জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপারকে অভিযোগ দেওয়া হলেও কোনো প্রকার ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি। ফলে সুনামগঞ্জ জেলা সড়ক পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়ন বাস চলাচল বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

যদি চাঁদাবাজদের বেআইনি এ দৌড়াত্ম বন্ধ করা না হয়, তাহলে স্থানীয় (লোকাল) সড়কেও গাড়ি চলাচল বন্ধ করে দেবে বলা জানিয়েছে জেলা সড়ক পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়ন। এ ব্যাপারে দ্রুত পদক্ষেপ নিতে সরকারের উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছেন জেলা সড়ক পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়নের নেতারা।

সুনামগঞ্জ জেলা সড়ক পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক নূরুল হক বলেন, সিলেটে একটি প্রভাবশালী মহল সুনামগঞ্জের বাস থামিয়ে কুমারগাও এলাকায় প্রতিটি বাস থেকে দীর্ঘদিন চাঁদাবাজি করে আসছে। বিষয়টি প্রশাসনকে জানানোর পরও তারা কোন ব্যবস্থা নেয়নি তাই আগামীকাল থেকে আন্তঃজেলা বাস চলাচল বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত হয়েছে।

জেলা বাস মিনিবাস মাইক্রবাস মালিক গ্রুপের সাধারণ সম্পাদক জুয়েল মিয়া বলেন, সুনামগঞ্জ থেকে সিলেটে গামীবাস সিলেটের তেমুখি পয়েন্ট এলাকায় থামিয়ে চাঁদাবাজী করে একটি গ্রুপ। প্রশাসনেরর কাছে দীর্ঘদিন যাবত বিষয়টি জানিয়ে কোন প্রতিকার না পাওয়ায় আন্তঃ জেলা বাস চলাচল বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। এ সিদ্ধান্তের ফলে, সুনামগঞ্জ ঢাকা, চট্টগ্রাম, কুমিল্লা, ময়মনসিংহ, বগুড়া, নোয়াখালী সহ ৫ টি রুটে আন্তঃ জেলা বাস চলাচল বন্ধ থাকবে। তবে সিলেট সুনামগঞ্জ রুটে বাস চলাচল স্বাভাবিক থাকবে।


সিলেটভিউ২৪ডটকম / শহীদনূর / ডালিম