হবিগঞ্জের বানিয়াচং উপজেলার নোয়া পাথাড়িয়া গ্রামে ব্যাটারিচালিত ইজিবাইক (টমটম) স্ট্যান্ডে বাকবিতন্ডার জেরে ৬ গ্রামবাসির মধ্যে ভয়াবহ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। প্রায় দুই ঘন্টা ব্যাপী চলা সংঘর্ষে পুলিশসহ অন্তত ৪০ জন আহত হয়েছে।

সোমবার বিকেল ৪ টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ বেশ কয়েক রাউন্ড কাঁদানে গ্যাস ও রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে।


স্থানীয়রা জানান, পাথারিয়া গ্রামের আশিক মিয়ার নেতৃত্বে আলম বাজার থেকে হাওর এলাকার কয়েকটি গ্রামে চলাচলরত ইজিবাইক স্টেশন পরিচালিত হয়। সকালে টুপিয়াজুরি গ্রামের দুই ইজিবাইক চালকের মধ্যে কথা-কাটাকাটি হয়। পরে টমটম সমিতির সভাপতি আশিক মিয়া তাদের বহিষ্কার করেন। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে হিয়ালা গ্রামের লোকজনের সঙ্গে পাথাড়িয়া গ্রামের সংঘর্ষ বেঁধে যায়।

পরে হিয়ালা গ্রামের পক্ষ নেন মক্রমপুর, কাবিলপুর, নিশিন্তপুর ও টুপিয়াজুড়ি গ্রামের লোকজন। প্রায় দুই ঘণ্টা ধরে চলে এ সংঘর্ষ। খবর পেয়ে বানিয়াচং থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রন করে। এ ঘটনায় আহতদের উদ্ধার করে জেলা সদর আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এর মধ্যে টেঁটাবিদ্ধ অবস্থায় পাঁচজনকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। 

বানিয়াচং থানার (ওসি) মোঃ দেলোয়ার হোসেন জানান, ইজিবাইক স্ট্যান্ডে বাকবিতন্ডা নিয়ে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে রয়েছে। অভিযোগের প্রেক্ষিতে দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে। 


সিলেটভিউ২৪ডটকম / জাকারিয়া / ডি.আর