বাজারে এলো দুর্দান্ত রেঞ্জের ইলেকট্রিক বাইক। মডেল অরহা ম্যান্টিস। এটি একটি ভারতীয় বাইক। ব্যাটারি চালিত টু হুইলারের দৌড়ে নতুন প্লেয়ারের এন্ট্রি হল। এই ইলেকট্রিক বাইক লঞ্চ হওয়ার ফলে গ্রাহকদের বিকল্পের সংখ্যা বাড়ল তা বলার অপেক্ষা রাখে না। নির্মাতা প্রতিষ্ঠানের দাবি অনুযায়ী, ফাস্ট চার্জার দিয়ে আড়াই ঘণ্টায় ফুল চার্জ দেওয়া যাবে এই বাইকে।


বেঙ্গালুরুর স্টার্ট-আপ প্রতিষ্ঠান অরহা এনার্জিস সম্প্রতি নতুন হাই-পারফরম্যান্সের এই ইলেকট্রিক মোটরসাইকেল লঞ্চ করেছে। ভারতীয় বাজারে এটি তাদের প্রথম ব্যাটারি চালিত বাইক।



অ্যালমুনিয়াম সাব-ফ্রেম দিয়ে তৈরি এই বাইক। রয়েছে একাধিক ফিচার্স যা আজকাল ইলেকট্রিক দুই চাকায় দেখা যায়। যদিও দাম আকাশচুম্বী। এই ইলেকট্রিক বাইকের দাম ভারতে সাড়ে তিন লাখ রুপিরও বেশি।


এই বাইকে দেওয়া হয়েছে ৮.৯ ব্যাটারি প্যাক। রয়েছে লিকুইড কুলড বিএলডিসি মোটর। যা সর্বোচ্চ ২৭ হর্সপাওয়ার এবং ৯৩ এনএম টর্ক তৈরি করতে পারে। বাইকের সর্বোচ্চ গতি ১৩৫ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টা। ০ থেকে ১০০ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টা গতি তুলতে সময় নেয় ৮.৯ সেকেন্ড।


বাইকের রেঞ্জ ফুল চার্জে ২২১ কিলোমিটার। সঙ্গে থাকছে ১.৩ স্ট্যান্ডার্ড চার্জার। যা ব্যাটারি ফুল চার্জ করতে সময় নেবে ৫ ঘণ্টা। তবে ৩.৩ ফাস্ট চার্জারের বিকল্পও থাকবে। এই চার্জারের মাধ্যমে আড়াই ঘণ্টার মধ্যে ০-১০০ শতাংশ ব্যাটারি চার্জ করতে পারবেন।


ইলেকট্রিক বাইকটির গ্রাউন্ড ক্লিয়ারেন্স ১৮৯ মিলিমিটার। এছাড়াও বাইকে রয়েছে মডার্ন ৫ ইঞ্চি টিএফটি ডিজিটাল ডিসপ্লে। যা নির্মাতা প্রতিষ্ঠানের নিজস্ব অপারেটিং সিস্টেমের মাধ্যমে কন্ট্রোল হবে। বাইকে মিলবে সাইড-স্ট্যান্ড সেন্সর, ব্লুটুথ কানেকশন এবং স্মার্টফোন কানেক্টিভিটি।

 

ফোনের মাধ্যমে কানেক্ট করে বাইক চালাতে চালাতেই নেভিগেশন অ্যাসিস্ট্যান্স, ডিসপ্লে ফোন নোটিফিকেশন এবং রাইড অ্যানালিস করার সুবিধা পাওয়া যাবে।


সিলেটভিউ২৪ডটকম/শাদিআচৌ-২