গতকাল বুধবার রাতে বৃষ্টি না হওয়ায় মৌলভীবাজারের সার্বিক বন্যা পরিস্থিতি কিছুটা স্বাভাবিক রয়েছে। তবে জেলার উপর দিয়ে বয়ে চলা নদীগুলোর পানি বিভিন্ন পয়েন্টে উঠানামা করছে। 

বিভিন্ন পয়েন্টে পানি বিপদসীমার উপর দিয়েও প্রবাহিত হচ্ছে। বৃষ্টি না হলেও আকাশ মেঘাচ্ছন্ন রয়েছে। উজানে বৃষ্টি হলে নতুন নতুন এলাকা প্লাবিত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।  


রাতে বৃষ্টিপাত না হওয়ায় পানি আক্রান্ত গ্রামগুলোর উঁচু স্থানগুলোতে পানি সরলেও নীচু এলাকার ঘরবাড়ি ও আশেপাশে পানি রয়েছে। ওইসব এলাকায় জনদুর্ভোগ চরম আকার ধারণ করেছে। 

এদিকে বুধবার দুপুরে ধলাই নদীর চৈত্রঘাট এলাকায় বন্যা প্রতিরক্ষা বাঁধের প্রায় ২শ' ফুট ভেঙে লোকালয়ে পানি প্রবেশ করে। মৌলভীবাজার-কমলগঞ্জ-সমশেরনগর সড়কে পানি উঠায় যান চলাচল ব্যাহত হয়। আজ বৃষ্টি না হওয়ায় কিছুটা স্বস্তি মিললেও বৃষ্টি হলেই পুনরায় সড়ক যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।  

মৌলভীবাজার জেলা প্রশাসন সূত্র জানায়, টানা বর্ষণ ও উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলে জেলার ৪৭৪টি গ্রাম প্লাবিত, ২ লাখ ৮১ হাজার ৯২০ জন মানুষ আক্রান্ত হয়েছে। জেলায় ২০৪টি আশ্রয়কেন্দ্র খোলা হয়েছে। আশ্রয়কেন্দ্রগুলোতে ১হাজার ৫১৩ টি পরিবার রয়েছে। এছাড়া চিকিৎসা সেবা দিতে ৭০টি মেডিক্যাল টিম গঠন করা হয়েছে।  

সিলেটভিউ২৪ডটকম/তমাল/ এনএফ