প্রকাশিত: ১২ মে, ২০২৩ ১৮:৪৬ (রবিবার)
ঘূর্ণিঝড় মোখার প্রভাবে চট্টগ্রাম বন্দরে অ্যালার্ট-২ জারি

অতি ঘূর্ণিঝড় ‘মোখা’র কারণে চট্টগ্রাম বন্দরে ‘অ্যালার্ট-২’ জারি করা হয়েছে। বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তর মোখার কারণে ৪ নম্বর হুঁশিয়ারি সংকেত জারির পর বন্দর কর্তৃপক্ষ শুক্রবার নিজস্ব এ অ্যালার্ট জারি করে।
 

চট্টগ্রাম বন্দরের সচিব ওমর ফারুক বলেন, ‘মোখার কারণে বন্দরের ‘অ্যালার্ট-২’ জারি করা হয়েছে। অ্যালার্ট-২ জারির পর লাইটার জাহাজগুলোতে নিরাপদ স্থানে আশ্রয় নিতে বলা হয়েছে। শুক্রবার সন্ধ্যায় সাইক্লোন স্ট্যান্ডিং কমিটির বৈঠক আহবান করা হয়েছে। যাতে পরবর্তী করণীয় নির্ধারণ হবে।’
 

এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘এখনো বন্দরের কার্যক্রম বন্ধ করা হয়নি। যদি ‘অ্যালার্ট-৫’ জারি করা হয় তখন বন্দরের কার্যক্রম বন্ধ থাকবে। যাতে বন্দর জেটি, চ্যানেল, হ্যান্ডলিং ইক্যুইপমেন্ট ঘূর্ণিঝড়ের কারণে ক্ষতিগ্রস্থ না হয়।’
 

জানা যায়, আবহাওয়া অধিদপ্তরের সংকেতের উপর নির্ভর করে নিজস্ব অ্যালার্ট জারি করে চট্টগ্রাম বন্দর। এ অ্যালার্ট-২ জারির কারণে লাইটার জাহাজগুলোকে সদরঘাট থেকে কর্ণফুলী শাহ আমানত সেতু এলাকার দিকে নিরাপদ আশ্রয়ে যেতে মাইকিং করা হচ্ছে। জেটি ও বহির্নোঙরে থাকা জাহাজগুলোকে ইঞ্জিন চালু রাখতে বলা হয়েছে। যাতে ঘূর্ণিঝড় আঘাতের সাথে সাথে তাৎক্ষণিক মুভমেন্ট করতে পারে। বন্দরের নিজস্ব জাহাজগুলোকে নিরাপদে সরিয়ে নেয়া হচ্ছে।
 

মধ্য বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন দক্ষিণপূর্ব বঙ্গোপসাগর এলাকায় সৃষ্ট অতি প্রবল ঘূর্ণিঝড় ‘মোখা' উপকূলের দিকে অগ্রসর হচ্ছে। এটি আজ (১২ মে) দুপুর ১২ টায় চট্টগ্রাম সমুদ্রবন্দর থেকে ১০০৫ কি.মি. দক্ষিণ-দক্ষিণ পশ্চিমে অবস্থান করছিল। এটি আরো উত্তর-উত্তরপূর্ব দিকে অগ্রসর ও ঘণীভূত হতে পারে। এ ঘূর্ণিঝড়ের কারণে চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, মোংলা ও পায়রা সমুদ্র বন্দরকে ০২ (দুই) নম্বর দূরবর্তী হুঁশিয়ারি সংকেত নামিয়ে তার পরিবর্তে ০৪ (চার) নম্বর স্থানীয় হুঁশিয়ারি সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর থেকে।



 

সিলেটভিউ২৪ডটকম/ডেস্ক/এসডি-২৩১