প্রকাশিত: ২৪ মে, ২০২৪ ১৭:২৭ (বুধবার)
টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের দূত হলেন আফ্রিদি

আর সপ্তাহখানেক পরই টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের পর্দা উঠবে। মেগা আসরটিতে বিশেষ দায়িত্ব হিসেবে তারকা ক্রিকেটারদের শুভেচ্ছাদূত বানিয়ে আসছে আইসিসি। সেই তালিকায় এবার যুক্ত হলেন পাকিস্তানের কিংবদন্তি অলরাউন্ডার শহীদ আফ্রিদি। ওয়েস্ট ইন্ডিজের সাবেক তারকা ক্রিস গেইল, সাবেক ভারতীয় অলরাউন্ডার যুবরাজ সিং ও কিংবদন্তি গতিমানব উসাইন বোল্টের পর আফ্রিদিকে দূত করা হয়েছে।
 

পাকিস্তানের বিশ্বকাপজয়ী তারকা ও এক আসরে ম্যান অব দ্য টুর্নামেন্ট হওয়া আফ্রিদির বিশেষ এই দায়িত্ব পাওয়ার কথা এক বিবৃতিতে জানিয়েছে আইসিসি। সাবেক এই অলরাউন্ডার ২০০৭ ও ২০০৯ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে পাকিস্তানের ফাইনাল খেলার অন্যতম নায়ক। এর মধ্যে দ্বিতীয় ফাইনালে তারা প্রথমবারের মতো সংক্ষিপ্ত ফরম্যাটের বিশ্বশিরোপা জেতে।
 

বিশেষ এই দায়িত্ব পেয়ে নিজের অনুভূতি জানিয়েছে পাকিস্তানের সাবেক অধিনায়ক আফ্রিদি, ‘আইসিসি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ এমন একটি ইভেন্ট, যা আমার হৃদয়ের খুব নিকটে। উদ্বোধনী আসরে প্লেয়ার অব দ্য টুর্নামেন্ট হওয়া এবং ২০০৯ সালে বিশ্বকাপ উঁচিয়ে ধরার মুহূর্ত আমার কাছে এখনও স্মরণীয়। আমার ক্যারিয়ারের পছন্দের কিছু হাইলাইটস এই প্রতিযোগিতা থেকে অর্জিত হয়েছে।’


‘টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ সাম্প্রতিক সময়ে আগের চেয়ে আরও শক্তিশালী হয়েছে এবং এই ফরম্যাটের অংশীদার হতে পেরে অনেক রোমাঞ্চিত। যেখানে আগের বেশি প্রতিযোগী (দল), বেশি ম্যাচ এবং অনেক বেশি নাটকীয়তা দেখা যাবে। বিশেষ করে আমি ৯ জুন ভারত-পাকিস্তানের ম্যাচটি দেখার জন্য অনেক রোমাঞ্চ অনুভব করছি। নিউইয়র্কে হতে যাওয়া ম্যাচগুলোর মধ্যে এটি হতে যাচ্ছে সবচেয়ে বড় রাইভালরি’, আরও যোগ করেন আফ্রিদি।
 

আইসিসির জেনারেল ম্যানেজার ক্লেইরি ফারলং জানিয়েছেন, ‘শহীদ (আফ্রিদি) ছয়টি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে অংশ নিয়েছিলেন, এর মধ্যে দুইবার অধিনায়ক এবং একবার প্লেয়ার অব দ্য টুর্নামেন্টও হয়েছেন। তার ম্যাচসেরা পারফরম্যান্সে পাকিস্তান ২০০৯ বিশ্বকাপও জিতেছিল, এমন তারকার অ্যাম্বাসেডর টিমে যুক্ত হওয়াটা উপযুক্ত। তিনিসহ যুবরাজ সিং, ক্রিস গেইল এবং আটবারের অলিম্পিক স্বর্ণজয়ী উসাইন বোল্ট বিশ্বজুড়ে অনেক জনপ্রিয়। যাদের মাধ্যমে টুর্নামেন্টটির সঙ্গে আরও অনেক দর্শক যুক্ত হবেন এবং সবচেয়ে বড় টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ হতে যাচ্ছে এবার।’
 

আগামী ২ জুন থেকে যুক্তরাষ্ট্র ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের মাটিতে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ শুরু হবে। ডালাসের গ্র্যান্ড প্রেইরি স্টেডিয়ামে উদ্বোধনী ম্যাচে মুখোমুখি হবে আয়োজক যুক্তরাষ্ট্র এবং কানাডা।



 

সিলেটভিউ২৪ডটকম/ডেস্ক/এসডি-৪০৪৪