সিলেটে বুধবার রাতে সড়ক দুর্ঘটনায় মারা গেছেন এক ছাত্রদল নেতা। নিহত পুলক রায় (৩০) সিলেটের দক্ষিণ সুরমা উপজেলার শিববাড়ি এলাকার গোপাল রায়ের ছেলে ও সিলেট মহানগর ছাত্রদলের সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক ছিলেন।

বুধবার রাত ১০টার দিকে সিলেট-কোম্পানীগঞ্জ সড়কের গোয়াইনঘাট উপজেলার মিত্রিমহল এলাকায় ট্রাক ও পুলিশের পিকআপে সংঘর্ষের ঘটনায় ট্রাকের পেছনে থাকা মোটরসাইকেলে থাকা পুলক ঘটনাস্থলেই মারা যান। এ দুর্ঘটনায় সঙ্গে থাকা তার এক বন্ধুও মারা গেছেন। তার নাম ফয়সল আহমদ (৩০)। তিনি সিলেটের শাহপরান বিআইডিসি এলাকার ফারুক মিয়ার ছেলে ও মাইক্রোবাস শ্রমিক নেতা। 


এদিকে, মৃত্যুর আগে পুলক রায়ের সর্বশেষ ফেসবুক পোস্ট ছিলো- ‘জন্মের প্রয়োজনে ছোট ছিলাম, তবে এখন মৃত্যুর প্রয়োজনে বড় হচ্ছি।’ এই ফেসবুক পোস্ট এখন তার বন্ধুমহলকে কাঁদাচ্ছে। 

সিলেট জেলা পুলিশের সহকারী মিডিয়া কর্মকর্তা শ্যামল বণিক জানান, বুধবার রাত ১০টার দিকে সিলেট-কোম্পানীগঞ্জ সড়কের টহলরত পুলিশের পিকআপ ভ্যানের সঙ্গে কোম্পানীগঞ্জমুখী নাম্বারবিহীন বেপরোয়া গতির একটি ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এসময় ট্রাকের পেছনে এসে ধাক্কা কায় একটি রেজিস্ট্রেশনবিহীন মোটরসাইকেল। এতে তিন আরোহী ছিটকে পড়ে ঘটনাস্থলেই চালক পুলকের মৃত্যু ঘটে। 

মোটরসাইকেলের অপর দুই আরোহীকে উদ্ধার করে সিলেট ওসমানী হাসপাতালে নেওয়া হলে রাত ২টার দিকে আইসিইউতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান পুলকের বন্ধু ফয়স।

ঘটনার পর বেপরোয়া ট্রাকচালক পালিয়ে যায়।


সিলেটভিউ২৪ডটকম / ডালিম