বর্তমানে বেশিরভাগ মানুষই সারাদিন কর্মব্যস্ত সময় কাটান। তাদের মধ্যে যারা কর্মস্থানে ডেস্কে বসে কাজ করেন তাদের বেশিরভাগই পিঠ ও কোমরের ব্যথায় ভোগেন।

যদিও বেশিরভাগ মানুষই মনে করেন দীর্ঘক্ষণ একই স্থানে বসে থাকার কারণে এমনকি ঘটে, তবে পিঠ ও কোমর ব্যথার কারণ যে একই হবে তা কিন্তুনয়।


বিভিন্ন কঠিন রোগের লক্ষণ হিসেবেও পিঠ ও কোমরে ব্যথা হতে পারে। যা প্রথমদিকে সবাই ভুলভাবে বসা বা দীর্ঘক্ষণ বসে-শুয়ে থাকাকে দায়ীকে করেন।

এ বিষয়ে ভারতের ঢাকুরিয়ার এএমআরআইয়ের কনসালটেন্ট ফিজিশিয়ান চিকিৎসক রুদ্রজিৎ পাল জানান, ডেস্কে বসে একটানা কাজ পিঠে ব্যথার অন্যতম কারণ, তা অস্বীকার করার উপায় নেই।

তবে তার থেকেও মারাত্মক কারণ হতে পারে পিঠে ব্যথার, যা হয়তো প্রাথমিকভাবে আমরা কেউই টের পায় না। যেমন-

পেশিতে টান

ভারী কোনো কিছু তুলতে গিয়ে বা শরীরচর্চার সময় পিঠের পেশীতে টান লেগে যন্ত্রণা হতে পারে। হঠাৎ করে শিরদাড়া ও তার আশপাশের পেশিতে মোচড় লেগে গেলে সমস্যা দেখা দিতে পারে।

এমন ঘটনা ঘটলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিন দ্রুত। আর মনে রাখবেন, ভারী জিনিস তোলার সময় সামান্য হাঁটু মুড়ে বসে তবেই তুলুন। আবার একদিকে বেশিক্ষণ ভারী জিনিস বহন করবেন না।

অস্টিওপোরেসিস

অস্টিওপোরোসিস হাড়ের একটি বিশেষ রোগ। এটি আসলে হাড় ক্ষয়ের রোগ। এর ফলে শুধু শিরদাড়া নয়, সারা শরীরের হাড় ও বোন-জয়েন্টে যন্ত্রণা করে।

শিরদাঁড়ায় আকারগত পরিবর্তন পর্যন্ত হতে পারে। অস্টিওপোরোসিসকে নিরব ঘাতকও বলা হয়। হিপ বোন বা স্পাইনের ব্যথা কখনো অবহেলা করবেন না।

হাড়ের টিবি

বোন টিবির ক্ষেত্রেও পিঠে ব্যথা তো বটেই, আরও খারাপ প্রভাব হতে পারে শরীরে। তাই পিঠে ক্রমাগত যন্ত্রণার কারণ বোন টিবিও হতে পারে। বোন টিবিতে মেরুদণ্ড, হিপ জয়েন্ট ও কোমরে প্রচণ্ড ব্যথা হয়।

কিডনির সমস্যা

কিডনিতে সংক্রমণ বা কিডনিতে পাথর হলে পিঠে ব্যথা হতে পারে। বিশেষ করে পিঠ থেকে তলপেট পর্যন্ত এই ব্যথা ছড়ায়। প্রায়ই এই অঞ্চলে ব্যথা হলে অবহেলা করবেন না।

পেলভিক পেইন

পেলভিক অঙ্গগুলোতে সমস্যা হলেও তা ব্যাকপেনের কারণ হতে পারে। যেমন- মূত্রাশয়, মূত্রথলি, ডিম্বাশয়, জরায়ু বা পুরুষদের ক্ষেত্রে প্রস্টেট গ্ল্যান্ডে কোনও জটিলতা তৈরি হলেও পিঠে ব্যথা হতে পারে।

সি-সেকশন

অনেক নারীদেরই সি-সেকশন করার আগে শিরদাড়ায় ইনজেকশন দিয়ে লোকাল অ্যানাসথেসিয়া করা হয়। পরবর্তী সময়ে শিরদাড়ার ওই অংশ থেকেও ব্যথা অনুভব করেন।

ক্যানসার

খুব কম ক্ষেত্রে হলেও ক্যানসারের কারণেও পিঠ ও কোমরে ব্যথা হতে পারে। তাই কখনো পিঠের ব্যথা এড়িয়ে যাওয়া উচিত নয়।

ভিটামিন ডি এর ঘাটতি

শরীর সুস্থ রাখতে ভিটামিন ডি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। এই ভিটামিনের ঘাটতির কারণেও পিঠে ব্যথা হতে পারে নিয়মিত। ভিটামিন ডি এর ঘাটতি পূরণে নিয়মিত শরীরে রোদ লাগান কিংবা সাপ্লিমেন্ট গ্রহণ করুন।

নরম বিছানায় শোয়ার কারণেও ব্যাকপেইন হতে পারে। দীর্ঘদিন ধরে নরম বিছানাব্যবহার করলে আপনার পিঠে ব্যথা বাড়তে পারে। নরম বিছানায় শোয়ার ফলে পেশি, লিগামেন্ট ও জয়েন্টের উপর চাপ পড়ে।


সিলেটভিউ২৪ডটকম/ডেস্ক/জিএসি-০৯


সূত্র : এবিপি