সিলেটের কানাইঘাট উপজেলার বড়চতুল ইউনিয়নের সরুফৌদ গ্রামে মঙ্গলবার (১২ অক্টোবর) প্রবাস ফেরত হাফিজ রফিক আহমদ (৫০) নিজ বাড়ির পুকুরে গোসল করতে গিয়ে পানিতে ডুবে মারা গেছেন।

তিনি সরুফৌদ গ্রামে মৃত আব্দুল কাদিরের পুত্র। থানাপুলিশ হাফিজ রফিক আহমদের লাশ উদ্ধার করেছে।

স্থানীয়রা জানান, সৌদি আরবে প্যারালাইসিসে আক্রান্ত হয়ে অনুমানিক ৩ বছর পুর্বে দেশে চলে আসেন হাফিজ রফিক আহমদ। কিছুটা সুস্থ হলে প্যারালাইসের কারণে দুই হাত অবস থাকার কারণে কোন ধরণের কাজ কর্ম করতে পারতেন না রফিক আহমদ। নিজ বাড়িতে অসুস্থ অবস্থায় তাঁর চিকিৎসা চলছিলো। প্রতিদিনের নায় তাঁর স্ত্রী হাসানাত নার্গিস মঙ্গলবার দুপুর ১টার ধিকে অসুস্থ স্বামীকে বাড়ির পুকুরে গোসল করতে নিয়ে যান।

পুকুরঘাটে গোসল করার সময় ডুব দেওয়ার পর স্বামী রফিক আহমদ ডুব থেকে না ওঠলে স্ত্রী হাসানাত নার্গিস চিৎকার শুরু করলে প্রতিবেশীরা এসে ডুবন্ত অবস্থায় রফিক আহমদের লাশ উদ্ধার করেন। পরে খবর পেয়ে থানার এস আই সাইদুল ইসলাম ঘটনাস্থলে গিয়ে নিহতের লাশ থানায় নিয়ে আসেন।

পানিতে ডুবে মারা যাওয়ার হাফিজ রফিক আহমদের পরিবারের লোকজন ও নিহতের স্ত্রী হাসানাত নার্গিস জানান, রফিক আহমদ স্ট্রোক ও প্যারালাইসিসে আক্রান্ত হওয়ার পর সৌদি থেকে দেশে আসলে ও অসুস্থ ছিলেন। নিয়মিত ডাক্তারের পরামর্শে তাঁর চিকিৎসা চলছিলো। পুকুরে গোসলে নিয়ে গেলে তিনি নিজে ডুব দিতে পারতেন। স্ত্রী গোসলের পরিচর্চা করতেন। কিন্তু মঙ্গলবার তাকে গোসলে নিয়ে যাওয়ার পর ডুব দেওয়া অবস্থায় তলিয়ে গিয়ে তাঁর মৃত্যু হয়।


সিলেটভিউ২৪ডটকম / মাহবুব / ডালিম