মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে প্রতিপক্ষের হামলায় পিতা ও পুত্র আহত হয়েছেন। স্থানীয়রা আশংকাজনক অবস্থায় আহত পিতা-পুত্রকে উদ্ধার করে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়েছেন। বুধবার সন্ধ্যায় আলীনগর ইউনিয়নের গকুলনগর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, গকুলনগর গ্রামের সফিক মিয়ার সাথে একই গ্রামের আব্দুস শহীদের সাথে দীর্ঘদিন ধরে জমি সংক্রান্ত বিরোধ চলছিল। সফিক মিয়া মাঠ থেকে মহিষ নিয়ে বাড়ি ফিরছিলেন। এ সময় দু’পক্ষের কথাকাটাকাটি নিয়ে প্রতিপক্ষ আব্দুস শহীদ ও তার পরিবার সদস্যরা দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে সফিক মিয়ার উপর অতর্কিত হামলা চালায়। হামলায় মো. সফিক মিয়া (৫৫) ও তার পুত্র শেখ রাফিজুল ইসলাম (২০) রক্তাক্ত জখম হন। পরে স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে সিলেট ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন।

সফিক মিয়ার ছেলে মিজানুর রহমান জানান, জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষরা তাহেরা বেগম, তার ছেলেরা ও আজমত উল্লাহর ছেলে ইয়াসিন মিয়া দেশীয় অস্ত্র নিয়ে তার বাবা ও ভাইয়ের উপর হামলা করেন। গুরুতর আহতাবস্থায় তাদেরকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তবে অভিযোগ বিষয়ে আব্দুস শহীদ ও তার পরিবার সদস্যদের বক্তব্য জানার চেষ্টা করেও তাদের পাওয়া যায়নি।

কমলগঞ্জ থানার পরিদর্শক (তদন্ত) সোহেল রানা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে ছিল। তবে এখন পর্যন্ত থানায় লিখিত কোন অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে তদন্তক্রমে প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।


সিলেটভিউ২৪ডটকম / জয়নাল / ডি.আর